উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ

গার্দিওলার মনে সুখ এনে দিলেন ফোডেন, সেমির পথে ম্যানসিটি

প্রকাশ : ০৭ এপ্রিল ২০২১, ১৭:৪৫

চলতি মৌসুমে দুর্দান্ত ফর্মে আছে ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটি। প্রিমিয়ার লিগেতো ৭৪ পয়েন্ট নিয়ে ধরাছোঁয়ার বাইরে চলে গেছে সিটি। হিসেব নিকেশ বলছে প্রিমিয়ার লিগ শিরোপাটি সিটিজেনদের ঘরেই উঠবে। প্রিমিয়ার লিগের পাশাপাশি চ্যাম্পিয়নস লিগেও রাজত্ব করছে দলটি। তবে চ্যাম্পিয়নস লিগে ডর্টমুন্ডের সেরা খেলোয়াড় আর্লিং হারলান্ডকে নিয়ে একটু দুশ্চিন্তায় ছিল সিটি কোচ পেপ গার্দিওলা। আগামী মৌসুমে এই হরল্যান্ডকেই দলে ভেড়ানোর সব চেষ্টায় এগিয়ে আছেন তিনিই।

আর্লিং হরলান্ড

ইউরোপের সেরা লিগ উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগে শেষ ষোলোর প্রথম লেগে এগিয়ে থেকেও শেষ মুহুর্তে ফিল ফোডেনের গোলেই জার্মান ক্লাব বরুশিয়া ডর্টমুন্ডকে হারিয়ে সেমিফাইনালের পথে এক পা দিয়ে রাখল ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটি।

মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) দিবাগত রাতে ইতিহাদ স্টেডিয়ামে বরুশিয়া ডর্টমুন্ডকে ২-১ গোলে হারিয়েছে পেপ গার্দিওলার শিষ্যরা।

পেপ গার্দিওলা

যথারীতি এই ম্যাচের একাদশ নিয়েও পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে গেছেন গার্দিওলা। রাইটব্যাক জোয়াও ক্যানসেলোকে খেলিয়েছেন লেফটব্যাক হিসেবে, সের্হিও আগুয়েরো-গাব্রিয়েল জেসুস-কোনো স্ট্রাইকারকেই খেলাননি, বরং স্ট্রাইকার হিসেবে মাঠে নামিয়ে দিয়েছিলেন পর্তুগিজ উইঙ্গার বের্নার্দো সিলভাকে। মূল একাদশে ছিলেন না রহিম স্টার্লিংও।

তবুও এদিন শুরুতেই এগিয়ে যায় সিটিজেনরা। ম্যাচের ১৯ মিনিটে মাঝমাঠে ডর্টমুন্ডের ডিফেন্ডার এমেরি কানের ভুলে বল পেয়ে যায় ব্রুইনা। সেখান থেকে বল নিয়ে এগিয়ে ডি-বক্সের ভেতর বাঁ দিকে থাকা ফোডেনের দিকে বাড়ান ব্রুইনা। তার পাস নিয়ন্ত্রণে নিয়ে কাট ব্যাক করেন রিয়াদ মাহারেজ। কাছ থেকে ডান পায়ের শটে জলে বল জড়িয়ে দেন বেলজিয়ান মিডফিল্ডার কেভিন ডি ব্রুইনা

কেভিন ডি ব্রুইনা

এরপর ম্যাচের ৩৫ মিনিটে সমতায় ফিরেছিল ডর্টমুন্ড। ক্লাবটির ইংলিশ উইঙ্গার জুড বেলিংহামের একটি গোল বাতিল করে আলোচনার জন্ম দেন রেফারি ওভিদিউ হাতেগান। সিটির ব্রাজিলিয়ান গোলরক্ষক এদেরসনের পা থেকে ভালোভাবেই বল কেড়ে নিয়ে গোল করেছিলেন এই তরুণ, কিন্তু রেফারি উল্টো ফাউলের কারণে গোলটা বাতিল করেন। হলুদকার্ড দেখেন বেলিংহাম। এরপর প্রথমার্ধের বাকি সময়ে আর কোনো গোল না হলে এই ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় ম্যানচেস্টার সিটি।

বিরতি থেকে ফিরে এসে ম্যাচের ৮৪ মিনিটে সমতায় ফেরে ডর্টমুন্ড। আর্লিং হরলান্ডের কাছ থেকে বল পেয়ে ডি-বক্সে ঢুকে সিটির গোলরক্ষক এদেরসকে পরাস্ত করে গোলটি করেন জার্মান উইঙ্গার মার্কো রয়েস। এতে ১-১ গোলের সমতায় ফিরে দুই দল।

আর্লিং হরলান্ড ও মার্কো রয়েস

তখনই দুশ্চিন্তায় কপালে ভাজ পরে সিটি কোচ পেপ গার্দিওলার। সিটির মনে তখন নিশ্চিত জয় হাতছাড়া হওয়ার শঙ্কা। কিন্তু ম্যাচের একদম শেষ মিনিটে গুরুর দুশ্চিন্তাকে দূর করে সুখ এনে দিলেন তার আরেক শিষ্য ফিল ফোডেন। ম্যাচের ৯০ মিনিটে ডি ব্রুইনার দারুণ ক্রস ডর্টমুন্ডের ডি-বক্সে থাকা ইলকাই গুন্দোয়ান নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ফোডেনকে পাস দেন। সেখান থেকে সহজেই গোলটি করে দলের জয় নিশ্চি করেন ইংলিশ মিডফিল্ডার ফিল ফোডেন। এতে ২-১ গোলের জয় নিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগের সেমিফাইনালে এক পা দিয়ে রাখল পেপ গার্দিওলার ম্যানচেস্টার সিটি।

ফিল ফোডেন

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
আপনি কী মনে করেন করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের পদক্ষেপ সন্তোষজনক?