x

এইমাত্র

  •  লন্ড‌নে নিজ বাসা থেকে অর্থমন্ত্রীর জামাতার মরদেহ উদ্ধার
  •  নুরের বিরুদ্ধে তথ্য-প্রযুক্তি আইনে শাহবাগ থানায় মামলা
  •  হাসপাতালে ভর্তি করোনা রোগীরা দ্রুত মারা যাচ্ছেন: আইইডিসিআর
  •  জ্বর আসেনি, ভালো আছেন খালেদা জিয়া: চিকিৎসক
  •  লকডাউনের মেয়াদ আরও ৭ দিন বাড়তে পারে

৫টি আজব বিষয় যা জিটিএ গেইমেই কমন

প্রকাশ : ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৮:৪৪

১। অদম্য ট্রেন: জিটিএ সিরিজের গেইমগুলোর মাঝে "জিটিএ সেনএড্রেস", "জিটিএ-৪", "জিটিএ-৫" এ ট্রেন আছে। মজার বিষয় হচ্ছে এই সব গুলো ট্রেনই অদম্য। কোনো ভাবেই এই ট্রেনগুলোকে থামানো সম্ভব নয়। এই ট্রেইন গুলোর সামনে ১০০টি প্রাইভেট কার কিংবা ট্রাক যাই রেখে দেওয়া হোক না কেন এই ট্রেন থামবে না। এমনকি অন্য একটি ট্রেনের ইঞ্জিনও যদি চলন্ত ট্রেনের সামনে রাখা হয় তাহলে ট্রেনটি এপার-ওপার হয়ে চলে যাবে।

২। চিট কোড: জিটিএ গেইমের জনপ্রিয়তার অন্যতম একটি কারন চিটকোডস। চিটকোডস জিটিএ সিরিজের সব গুলো গেইমেই রয়েছে। গেইমের সাথে সাথে চিট কোডগুলোও আপগ্রেড করা হয়েছে।

৩। নির্মানাধীন বাড়ি: প্রতিটা জিটিএ গেইমেই নির্মানাধীন কিছু বাড়ি পাওয়া যায়। এবং পুরো গেইমে এখান থেকে কিছু মিশনও করতে হয়। গেইমে যত সময়ই পার করা হোকনা কেন এই বাড়ি গুলোর নির্মান কখনো শেষ হয় না। একদম শেষ অব্দি একই অবস্থায় থাকে।

৪। গাড়িতে রেডিও মোড: জিটিএ সিরিজের সবগুলো গেইমেই যখনই গাড়ি নেয়া হয় তখনই গাড়িতে রেডিও মোড চালু হয়ে রেডিও বাজতে থাকে। মজার বিষয় হচ্ছে এই রেডিও স্টেশনে "রকস্টার" এর নিজস্ব জোকস চলতে থাকে।

৫। আমেরিকানস সিটি: জিটিএ গেইম শুধু মাত্র "জিটিএ লন্ডন" ছাড়া বাকি সব গুলো গেইমই আমেরিকান সিটির দেখা গেছে। এর ফলে অনেক মানুষের ধারনা "রকস্টার" গেইম আমেরিকান কোনো কোম্পানী। কিন্তু মোটেই তা নয়। এটি একটি ব্রিটিশ কোম্পানী।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত