x

এইমাত্র

  •  পাঁচজন বিশিষ্ট নারীকে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব পদক-২০২২ প্রদান করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
  •  ভারতের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য রাজস্থানে মন্দিরে পদদলিত হয়ে ৩ জন নিহত হয়েছেন
  •  জ্বালানি তেল ডিজেল, পেট্রল ও অকটেনের মূল্যবৃদ্ধির প্রজ্ঞাপনের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট
  •  তাইওয়ানের পাশে সামরিক মহড়া অব্যাহত রাখবে চীন
  •  কওমি মাদ্রাসার শিক্ষা বোর্ডগুলোর সঙ্গে পূর্বনির্ধারিত ১০ আগস্টের বৈঠক স্থগিত করেছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়

শুভ দীপাবলি উৎসব

প্রকাশ : ০৪ নভেম্বর ২০২১, ১০:২৫

সাহস ডেস্ক

দুর্গোৎসবের পর সনাতন ধর্মাবলম্বীদের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব কালীপূজা ও দীপাবলি উৎসব আজ। কার্তিক মাসের অমাবস্যা তিথিতে সাধারণত কালীপূজা বা শ্যামাপূজা অনুষ্ঠিত হয়। করোনাভাইরাস মহামারির দুর্যোগ মাথায় নিয়েই স্বাস্থ্যবিধি মেনে এবারও দেশজুড়ে এ পূজা উদযাপন করা হবে। 

হিন্দু পুরাণ মতে, কালীদেবী দুর্গারই একটি শক্তি। সংস্কৃত ভাষার ‘কাল’ শব্দটি থেকে কালী নামের উৎপত্তি। কালীপূজা হচ্ছে শক্তির পূজা। জগতের সকল অশুভ শক্তিকে পরাজিত করে শুভ শক্তির বিজয় মধ্যেই রয়েছে কালীপূজার মাহাত্ম্য। কালীর অন্য নাম শ্যামা বা আদ্যশক্তি। শাক্ত ধর্মাবলম্বীদের তন্ত্রশাস্ত্র মতে, তিনি দশমহাবিদ্যা। তন্ত্রমতে পূজিত প্রধান দশজন দেবীর মধ্যে প্রথম। শাক্তরা কালীকে বিশ্বব্রহ্মাণ্ড সৃষ্টির আদিকারণ মনে করে। বাঙালী হিন্দু সমাজে কালীর মাতৃরূপের পূজা বিশেষ জনপ্রিয়। কালীর বিভিন্ন রূপভেদ আছে। যেমন-দক্ষিণাকালী, শ্মশানকালী, ভদ্রকালী, রক্ষাকালী, মহাকালী, চামুণ্ড ইত্যাদি। আবার বিভিন্ন মন্দিরে ব্রহ্মময়ী, ভবতারিণী, আনন্দময়ী, করুণাময়ী ইত্যাদি নামে কালী প্রতিমা প্রতিষ্ঠিত ও পূজিত হয়।

কালীপূজার দিন হিন্দু সম্প্রদায় আজ সন্ধ্যায় তাদের বাড়িতে ও শ্মশানে প্রদীপ প্রজ্বালন করে স্বর্গীয় পিতা-মাতা ও আত্মীয়-স্বজনদের স্মরণ করবেন। এটিকে বলা হয় দীপাবলি। দীপাবলি ভারতে ‘দিওয়ালি’ নামেও পরিচিত। অমাবস্যা রাতের সমস্ত অন্ধকার দূর করতে এই রাতে প্রদীপ জ্বালানো হয়। যাতে পৃথিবীতে প্রতিনিয়ত অশুভ শক্তির হাত থেকে রক্ষা পায়।

দুর্গাপূজার মতো কালীপূজাতেও গৃহে বা মণ্ডপে মৃন্ময়ী প্রতিমা নির্মাণ করে পূজা করা হয়। মন্দিরে বা গৃহে প্রতিষ্ঠিত প্রস্তরময়ী বা ধাতুপ্রতিমাতেও কালীপূজা করা হয়। মধ্যরাত্রে তান্ত্রিক পদ্ধতিতে মন্ত্রোচ্চারণের মাধ্যমে পূজা অনুষ্ঠিত হয়। তবে গৃহস্থ বাড়িতে সাধারণত অতান্ত্রিক ব্রাহ্মণ্যমতে আদ্যাশক্তি কালীর রূপে কালীর পূজা অনুষ্ঠিত হয়।

কোথাও শ্যামাপূজার আনন্দ-উৎসব চলবে আজ থেকে টানা তিন দিন। আবার কোথাও পূজা শেষে কাল শুক্রবার রাতে প্রতিমা বিসর্জন দেবে। রাজধানীর পুরান ঢাকায় প্রতিবছরের ন্যায় এবারও সবচেয়ে বেশি শ্যামা মায়ের পূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। সরকার থেকেও নেয়া হয়েছে কঠোর নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা। ঢাকার অধিকাংশ পূজামণ্ডপে আনা হয়েছে নানা বৈচিত্র্য। বর্ণাঢ্য সাজে সাজানো হয়েছে পূজামণ্ডপগুলো।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত