বোমা বিস্ফোরণে পুলিশ হত্যা: মামলায় সব আসামি খালাস

প্রকাশ : ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১৬:২৮

শেখ নাদীর শাহ্, খুলনা

খুলনায় দুই পু‌লিশ সদস্য হত্যার বি‌স্ফোরক মামলার ৮ আসা‌মি‌দের খালাস দি‌য়ে‌ছেন আদালত। বৃহস্প‌তিবার (১ ডিসেম্বর) খুলনা মহানগর দায়রা জজ আদাল‌তের বিচারক মাহমুদা খাতুন এ রায় ঘোষণা ক‌রেন। ওই আদাল‌তের রাষ্ট্রপ‌ক্ষের আইনজীবী কে এম ইকবাল হো‌সেন রা‌য়ের বিষয়‌টি নি‌শ্চিত ক‌রে‌ছেন। খালাসপ্রাপ্ত আসা‌মিরা হ‌লেন, আব্দুর র‌শিদ মা‌লিথা তপন. মিলন, কামাল, বিপ্লব, শেখ শাহাদাৎ হোসেন রাজু, আসাদুজ্জামান টিপু, একরাম হো‌সেন ও র‌ফিকুল ইসলাম মিল্টন।

আদালত সূত্রে জানাযায়, গত ২০০৩ সালের ১১ মার্চ পুলিশ সদস্য শরীফুল, রমেশচন্দ্র, নিজাম উদ্দিন ও মনিরুজ্জামান নগরীর পাওয়ার হাউস মোড়ে দায়িত্ব পালন করছিলেন। সন্ধ্যা ৭ টা ৫০ মিনিটের দিকে কিছু বুঝে ওঠার আগেই দুর্বৃত্তরা তাদের ওপর বোমা নিক্ষেপ করে। বোমার আঘাতে পুলিশ সদস্য মনিরুজ্জামানের পা শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। অপর দুই পুলিশ সদস্য গুরুতর আহত হন। তাদের অবস্থা মারাত্মক সংকটাপন্ন হয়ে পড়ে। এ সুযোগে দুর্বৃত্তরা রমেশ চন্দ্রের নামে সরকারি অস্ত্র শর্টগান ৯৭ মডেল ও ৭ রাউন্ড গুলি নিয়ে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে পুলিশ এসে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিলে তাদের মধ্যে শরীফুল ও রমেশচন্দ্রকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

এ ঘটনায় সোনাডাঙ্গা থানার এস আই আশরাফুল ইসলাম বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামিদের বিরুদ্ধে থানায় হত্যা ও বিস্ফোরক আইনে দু’টি পৃথক মামলা দায়ের করেন। মামলায় তিনজন তদন্ত কর্মকর্তা পরিবর্তন হয়। সর্বশেষ ২০০৪ সালের ৪ সেপ্টেম্বর এস আই অরবিন্দু বিশ্বাস আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

দীর্ঘ দেড়যুগ পর আজ আলোচিত হত্যা মামলার রায় ঘোষণা করা হলো। এ মামলার ৯ আসামির মধ্যে রিয়াজুল হক মাসুদ নামে এক আসামি মৃত্যুবরণ করেছেন। বাকী ৮ আসামিকে খালাস দেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে রাজু কারাগারে ছিল, মিল্টন, টিপু ও মিলন জামিনে ছিলেন। এছাড়া একরাম, কামাল, বিপ্লব ও মালিথা পলাতক রয়েছে।

সাহস২৪.কম/এএম.

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
নির্বাচন কমিশনের ওপর মানুষের আস্থা এখন শূন্যের কোঠায় পৌঁছেছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের। আপনিও কি তাই মনে করেন?