মিরসরাইয়ে র‍্যাবের ওপর হামলার অভিযোগ, গ্রেপ্তার ১৩

প্রকাশ : ২৭ মে ২০২২, ১৫:২৬

সাহস ডেস্ক

চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে র‍্যাব সদস্যদের ওপর হামলা চালানো ঘটনা ঘটেছে। এ সময় র‌্যাবের কাছ থেকে অস্ত্র ছিনিয়ে নেওয়া হয়। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ১৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। বৃহস্পতিবার (২৬ মে) রাতে ফেনীর ছাগলনাইয়া ও মিরসরাই বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে এদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। একই সঙ্গে র‍্যাবের কাছ থেকে ছিনিয়ে নেওয়া অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন সাইদুর রহমান (৩৩), আনোয়ার হোসেন (৪৫), এস এম শাফায়েত হোসেন (৩৮), মফিজুল ইসলাম (৩৬), শহিদুল ইসলাম (২৫), সোয়েব উদ্দিন (২৯), মো. সাইদুল ইসলাম (৩০), নাহিদ উদ্দিন (৩০), মো. আবু সাঈদ (২৮), নাসির উদ্দিন (৩৮), মো. মাঈন উদ্দিন, হোসেন (৩৩), ফাহাদ (২৬)।

র‍্যাব ৭-এর পক্ষ থেকে এই তথ্য জানানো হয়। র‍্যাব-৭ চট্টগ্রামের সহকারী পরিচালক (গণমাধ্যম) নুরুল আবসার বলেন, ‘ঘটনার সিসি ফুটেজসহ প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে হামলাকারীদের পরিচয় শনাক্ত করে ১৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’

র‍্যাব-৭ চট্টগ্রামের সহকারী পরিচালক নুরুল আবসার বলেন, ‘হামলাকালে সাইদুর এক র‍্যাব সদস্যের কাছ থেকে একটি অস্ত্র ছিনিয়ে নিয়ে যান। পরে সাইদুরকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে ছিনিয়ে নেওয়া অস্ত্রটি শাফায়েতের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়।’ গ্রেপ্তার ব্যক্তিদের কাছ থেকে ২ হাজার ইয়াবা বড়ি, ৫২ বোতল ফেনসিডিল ও ১ কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানায় র‍্যাব।

গত বুধবার (২৫ মে) সন্ধ্যায় মিরসরাই উপজেলার বারইয়ারহাট পৌর বাজারে শান্তিরহাট রাস্তার মাথায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে হামলার শিকার হন র‍্যাব সদস্যরা। মাদক ব্যবসায়ীদের সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহের জন্য তারা সাদা পোশাকে এলাকায় গিয়েছিলেন। এসময় একটি কাভার্ড ভ্যান দিয়ে র‍্যাব সদস্যদের গতিরোধ করা হয়। পরে কাভার্ড ভ্যানে থাকা লোকজন ‘ডাকাত ডাকাত’ বলে চিৎকার দেয়। এই চিৎকার শুনে স্থানীয় লোকজন আসে। স্থানীয় লোকজনসহ দুষ্কৃতকারীরা র‍্যাব সদস্যদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় দুই র‍্যাব সদস্যসহ তিনজন গুরুতর আহত হন। আহত র‍্যাব সদস্যরা বর্তমানে ঢাকায় সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
নির্বাচন কমিশনের ওপর মানুষের আস্থা এখন শূন্যের কোঠায় পৌঁছেছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের। আপনিও কি তাই মনে করেন?